ডাচ্-বাংলা এজেন্ট ব্যাংকিং গ্রাহকদের সাথে প্রতারণা করে প্রায় কোটি টাকা হাতিয়ে নেওয়া প্রতারক গ্রেফতার


প্রকাশের সময় : মার্চ ২৬, ২০২৪, ৯:২৪ অপরাহ্ন / ৪৬
ডাচ্-বাংলা এজেন্ট ব্যাংকিং গ্রাহকদের সাথে প্রতারণা করে প্রায় কোটি টাকা হাতিয়ে নেওয়া প্রতারক গ্রেফতার

 

শ্রী মিশুক চন্দ্র ভুঁইয়া
পটুয়াখালী জেলা প্রতিনিধি।

 

ডাচ্-বাংলা এজেন্ট ব্যাংকিং গ্রাহকদের সাথে প্রতারণা করে প্রায় কোটি টাকা হাতিয়ে নেওয়া প্রতারক চক্রের মুলহোতাকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-৬। র‌্যাব এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানান, অপরের টাকা লুটপাট করে আত্মসাৎ করাই আসামী শাহীনের নেশা ও পেশা। ডাচ্-বাংলা ব্যাংক পিএলসি সাধারন মানুষের সেবা প্রদানের নিমিত্তে জেলা শহরের বাহিরে বিভিন্ন উপজেলা সদর সহ গ্রামগঞ্জে এজেন্ট ব্যাংকিং খুলে সাধারন মানুষের সেবা ব্যাংকিং এর নিয়ন্ত্রনাধীন হাওলাদার এন্টারপ্রাইজ, নতুন বাজার, দুমকি, পটুয়াখালীতে অবস্থিত এজেন্ট ব্যাংকটি জনসাধারনের সেবার জন্য আসামী শাহীনকে এজেন্ট হিসাবে নিয়োগ করা হয়। আসামী উক্ত এজেন্ট ব্যাংকটি পরিচালনা করতো। আসামী গ্রাহকগণের সরলতার সুযোগে গ্রাহকগণের নিকট হইতে মোট ৯১,৮৭,৯৮২/- (একানব্বই লক্ষ সাতাশি হাজার নয়শত বিরাশি) টাকা অপরাধ জনক বিশ্বাস ভঙ্গের মাধ্যমে প্রতারনার আশ্রয় নিয়ে বিভিন্ন তারিখে আত্মসাৎ করেছে। বিষয়টি গ্রাহকগণ, লিখিত ভাবে ব্যাংকের এজেন্ট ব্যাংকিং অফিস, পটুয়াখালীতে অভিযোগ দায়ের করেন। টাকা উদ্ধারের চেষ্টা করে ব্যর্থ হওয়ায় এবং ব্যাংকের সুনাম রক্ষার্থে ব্যাংকের উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে পরবর্তীতে রিপন কুমার দে, এরিয়া হেড, ডার্চ বাংলা ব্যাংক, বাদী হয়ে পটুয়াখালী জেলার দুমকি থানায় একটি প্রতারণা মামলা দায়ের করেন। উক্ত ঘটনার পর থেকে আসামীকে গ্রেফতারের লক্ষ্যে র‌্যাব-৬ এর একটি আভিযানিক দল গোয়েন্দা তৎপরতা শুরু করে এবং অভিযান অব্যাহত রাখে। এরই ধারাবাহিকতায় অদ্য ২৫ মার্চ ২০২৪ তারিখ র‌্যাব-৬, খুলনার একটি বিশেষ আভিযানিক দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে যে, আসামী বাগেরহাট জেলার ফকিরহাট থানা এলাকায় অবস্থান করছে। প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের উদ্দেশ্যে আভিযানিক দলটি একই তারিখ বিকালে বাগেরহাট জেলার ফকিরহাট থানাধীন ফকিরহাট বাসস্ট্যান্ড এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে আসামী ১। শাহীন হাওলাদার (৩৫), পিতা- মোঃ ইউনুচ হাওলাদার, মাতা- জাহানারা বেগম, সাং-দুমকি, থানা-দুমকি, জেলা-পটুয়াখালীকে গ্রেফতার করেন। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃত আসামী প্রতারণার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে। পরবর্তিতে গ্রেফতারকৃত আসামীকে পটুয়াখালী জেলার দুমকি থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।